অপরাধআন্তর্জাতিক

বোরকা নিয়ে কটূক্তির পক্ষে কথা বললেন মিস্টার বিন

মুসলিম নারীদের বোরকা নিয়ে ব্রিটেনের সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী বরিস জনসনের কটূক্তির পক্ষে সাফাই গেয়েছেন দেশটির কৌতুক অভিনেতা রাওয়ান আটকিনসন। বিশ্বব্যাপী যিনি মিস্টার বিন নামে পরিচিত।

সাবেক ব্রিটিশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী বরিস জনসন মুসলিম নারীদের বোরকা নিয়ে কটূক্তি করেছিলেন। সেই কটূক্তির পক্ষে সাফাই গাইলেন দেশটির জনপ্রিয় কৌতুক অভিনেতা রাওয়ান অ্যাটকিনসন বা মিস্টার বিন।

এর আগে সাপ্তাহিক কলামে বরিস জনসন লিখেছেন, ‘বোরকা পরা মুসলিম নারীদের দেখতে চিঠি ফেলার বাক্সের মতো লাগে’ (দ্য ডেইলি টেলিগ্রাফ)

বরিস আরো বলেন, “এছাড়া মুখমন্ডল এবং পুরো শরীর ঢাকা ওই নারীদের কেবল চোখদুটো খোলা থাকায় তাদেরকে দেখতে ব্যাংক ডাকাতের মত লাগে’

আগুনে ঘি ঢালার জন্য এটুকুই যথেষ্ট ছিল। এসব বক্তব্যের পর ক্ষেপে ওঠে বিভিন্ন রাজনৈতিক দল।

তার মন্তব্যের পর যুক্তরাজ্যের প্রধানমন্ত্রী টরিজা মে ও নিজ দল কনজারভেটিভ পার্টির পক্ষ থেকে জনসনকে ক্ষমা চাইতে বলা হলে তাও মানেননি তিনি।

টাইমস পত্রিকাকে দেয়া এক চিঠিতে মিস্টার বিন লিখেছেন, ধর্ম নিয়ে কৌতুক তৈরির স্বাধীনতার সুবিধাভোগী হিসেবে আমি মনে করি বোরকা নিয়ে বরিস জনসনের পরিহাস একটা ভালো কিছু।

বরিসের পক্ষ নিয়ে মিস্টার বিন বলেন, এটা খুবই চমৎকার একটি দৃশ্যগত উপমা ও কৌতুক। বরিস জনসন এর জন্য দুঃখপ্রকাশ করুক কিংবা না-ই করুক আসছে দিনগুলোতে এটা মানুষের চিন্তার মধ্যে থাকবে।

তিনি বলেন, ধর্ম নিয়ে সব কৌতুকই অসন্তোষের কারণ। কাজেই সেজন্য ক্ষমা চাওয়া একেবারেই অর্থহীন। আপনার উচিত কেবল খারাপ কৌতুকের জন্য ক্ষমা চাওয়া। সেক্ষেত্রে এখানে দুঃখ প্রকাশের কোনো কারণ নে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *