অপরাধবাংলাদেশ

দুই লাখ টাকা না দেয়ায় স্ত্রীর মাথায় বাড়ি, অতঃপর…

নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জে ঘুড়ির নাটাই দিয়ে স্ত্রীর মাথায় বাড়ি দিয়ে মেরে ফেললেন স্বামী। বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১২টার দিকে সিদ্ধিরগঞ্জের গোদনাইল চৌধুরিবাড়ি শান্তিনগর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় ঘাতক স্বামী জনিকে আটক করেছে পুলিশ। নিহত গৃহবধূ আলোর (২২) মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নারায়ণগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে সিদ্ধিরগঞ্জ থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক জসিম উদ্দিন বলেন, বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১২টার দিকে গোদনাইল শান্তিনগর এলাকায় কামাল উদ্দিনের বাড়িতে স্বামীর হাতে গৃহবধূ আলো খুন হন। আলো মুন্সিগঞ্জের শ্রীনগর থানার শেলামতি গ্রামের মৃত রফিকের মেয়ে। এ ঘটনায় গৃহবধূর স্বামী জনিকে আটক করা হয়েছে। জনি শান্তিনগর এলাকার বাবুলের ছেলে। ঘটনাস্থল থেকে একটি ঘুড়ির নাটাই ও রক্তমাখা কাপড় উদ্ধার করা হয়েছে। নাটাই দিয়ে পিটিয়ে গৃহবধূ আলোকে খুন করা হয়েছে। গৃহবধূর মরদেহ মর্গে পাঠানো হয়েছে।

নিহত গৃহবধূর মামা আদর আলী বলেন, আলোর মা-বাবার মৃত্যুর পর আমরা তাকে লালনপালন করি। ৫ বছর আগে জনির কাছে বিয়ে দিই ভাগ্নিকে। বিয়ের পর থেকে যৌতুকের জন্য ভাগ্নিকে মারধর করত জনি ও তার পরিবার। সম্প্রতি জনির পরিবার আমাদের কাছে দুই লাখ টাকা যৌতুক দাবি করে। দিতে না পারায় আমার ভাগ্নিকে খুন করা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *