অপরাধ

মধ্যরাতে ঘুমন্ত নারীর আন্তর্বাস চুরি!

ভারতের গোয়া রাজ্যে মধ্যরাতে ঘুমন্ত নারীদের অন্তর্বাস চুরির অভিযোগ বেশ কিছুদিন ধরেই আসছিল স্থানীয় পুলিশের কাছে। ভোররাতে ঘরের দরজা খুলে ভিতরে আসে এক ব্যক্তি। বিবস্ত্র অবস্থায় ঘুমন্ত নারীদের দেখে চলে যায় চোর। এরইমধ্যে ঘটনার তদন্ত শুরু করে দিয়েছে পুলিশ।

গোয়ার একটি কমপ্লেক্সের বেশ কয়েকটি পরিবার একই অভিযোগ করেছে বলে জানিয়েছে স্থানীয় পুলিশ। গত তিনমাস ধরে চলছে এসব অদ্ভুদ কার্যক্রম। এ বিষয়ে স্থানীয়রা জানিয়েছেন, তারা ঘুম থেকে উঠে দেখেন তাদের দরজা, যা রাতে বন্ধ করা ছিল সেটা খোলা। জানালাও খোলা। এভাবে প্রবেশ করে কোন চোর বিশেষ উপায়ে বন্ধ করা দরজা খুলতে পারে। তবে শুধুমাত্র যেসব বাড়িতে নারী রয়েছে, শুধুমাত্র সেখানেই প্রবেশ করে সেই ব্যক্তি।


সেই ব্যক্তির বর্ণনা করতে গিয়ে নারীরা জানিয়েছেন, উচ্চতা মাঝারি, গায়ের রঙ কালো, পরণে শুধু একটা আন্ডারওয়্যার। সেই কমপ্লেক্সের ‘এ’ ব্লককেই টার্গেট করেছিল। ঠিক ভোর সাড়ে ৩টা থেকে ৪ টার মধ্যেই আসে ওই ব্যক্তি।

তিনজন নারী জানিয়েছেন, তাদের অন্তর্বাস চুরি গেছে। তবে ঘরের কোনও মূল্যবান জিনিস চুরি যেতে দেখা যায়নি। তবে অনেক সময় নগদ টাকা নিতে দেখা গেছে সেই ব্যক্তিকে। এক ফ্ল্যাট থেকে চুরি গেছে ২০,০০০ টাকা। এছাড়া অন্য দুটি ফ্ল্যাট থেকে ২০০০ ও ৩০০০ টাকা চুরি গেছে। সব মিলিয়ের চুরির পরিমাণ ৩৪,০০০ টাকা।

সম্প্রতি এক নারী দেখেন, তাদের ঘরেই তাদের পাশে শুয়ে আছে সেই ব্যক্তি। তারা উঠে পড়লেই পালিয়ে যান তিনি। তাকে আর খুঁজে পাওয়া যায়নি। এ ঘটনার পর ২ সেপ্টেম্বর ২০৪ নম্বর ফ্ল্যাটে মাঝরাতে জেগে ওঠে এক দম্পতি। উঠে তারা দেখেন, একটি লোক তাদের দিকে তাকিয়ে দাঁড়িয়ে আছে। এরপর ফ্ল্যাটের জানালা দিয়ে পালায় সেই ব্যক্তি। কিন্তু তার চেহারাটা স্পষ্ট দেখতে পায় এই দম্পতি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *